সিরিয়ায় সেনাবাহিনীর ২৩ সদস্য নিহত

27

বিরোধী গোষ্ঠীর হামলায় সিরিয়ার পূর্বাঞ্চলীয় এলাকা ওয়ার টর্নে সেনাবাহিনীর ২৩ সদস্য নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছে আরও ১০ সেনা সদস্য। শুক্রবার এ তথ্য জানায় মনিটর। দায়েশ নামের এ গোষ্ঠী তাদের অস্তিত্ব জানান দিতেই এ হামলা চালিয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

Advertisement
spot_img

সিরিয়ান অবজারভেটরি ফর হিউম্যান রাইটস জানায়, গোষ্ঠীটি সেনাবাহিনীর একটি বাসকে লক্ষ্য করে এ হামলা চালায়। হামলার পর থেকে বহু সৈন্য নিখোঁজ রয়েছে বলেও জানায় সংস্থাটি। সিরিয়ার রাষ্ট্রীয় মিডিয়ার খবরে এ হামলার ঘটনা নিশ্চিত করা হয়েছে।

গত সপ্তাহে দায়েশের পক্ষ থেকে তাদের প্রধান নেতা আবু আল হুসেইন আল হুসেইনি আল কুরাইসি নিহতের কথা প্রচার করা হয়। সিরিয়ার উত্তরপশ্চিমাঞ্চলে একটি সংঘর্ষে তার মৃত্যু হয়। বর্তমানে দলটির নেতা হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন আবু হাফস আল হাসিমি আল কুরাইশি।

অবজারভেটরি জানায়, গত সপ্তাহে দায়েশের হামলায় সরকারপন্থি ১০ জন সেনাবাহিনীর নিহত হয়। দেশটির রাক্কা প্রদেশে এ ঘটনা ঘটে। এছাড়া একটি তেলের ট্যাকারকে লক্ষ্য করে হামলা চালায় এই গোষ্ঠিটি, এতে প্রায় ৭ জন সৈন্য নিহত হয়।

তাদের মতে দায়েশ তাদের হামলার সংখ্যা বাড়িয়েছে। এখন তাদের প্রধান লক্ষ্য সিরিয়ার সৈন্যরা। এর মধ্যে দিয়ে মূলত তারা তাদের শক্তিমত্তার প্রমাণ দিচ্ছে।

Advertisement
spot_img